ইসরায়েলি সেনার গুলিতে ফিলিস্তিনি সাংবাদিক নিহত

গাজায় ইসরায়েলি সেনাদের গুলিতে আহত ফিলিস্তিনি সাংবাদিক ইয়াসির মুরতাজার মৃত্যু হয়েছে। গতকাল শুক্রবার গাজা সীমান্তে ইসরায়েলি সেনাদের ছোড়া গুলি তার পেটে লাগে। শনিবার চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

এ নিয়ে ৩১ মার্চ বিক্ষোভ শুরুর পর ৩১ জনের মৃত্যু হলো ইসরায়েলের সেনাদের গুলিতে। ভূমি দিবস সামনে রেখে ওই দিন বিক্ষোভ শুরু করেন ফিলিস্তিনিরা। সেদিনই ইসরায়েলি বাহিনীর গুলিতে নিহত হন ১৬ জন।

গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে আল জাজিরা ও বার্তা সংস্থা এএফপির খবরে বলা হয়েছে, গাজাভিত্তিক আইন মিডিয়া এজেন্সির আলোকচিত্রী ইয়াসির মুরতাজা। গাজা উপত্যকায় ফিলিস্তিনিদের বিক্ষোভের ওপর শুক্রবার ইসরায়েলি সেনারা গুলি চালায়। ওই সময় আলোকচিত্রী ইয়াসির মুরতাজা গুলিবিদ্ধ হন। পরে তিনি মারা যান। ঘটনার পর ইয়াসিরের রক্তাক্ত শরীরের একটি ছবি ধারণ করেন একজন সাংবাদিক। এ সময় ইয়াসিরের বুকে প্রেস লেখা বিশেষ পোশাক ছিল। তখনো তিনি চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে ইসরায়েলি সেনাবাহিনী।

হোসাম সালেম নামের একজন আলোকচিত্রী শুক্রবারের ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী। তিনি আল জাজিরাকে বলেন, ‘ইসরায়েলি সেনার গুলিতে মাটিয়ে লুটিয়ে পড়ে যান ইয়াসির। ইয়াসির মুরতাজা আমার পাশেই ছবি তুলছিলেন। গুলির শব্দ পাওয়ার কিছুক্ষণ পরেই দেখি তিনি মাটিতে পড়ে গেলেন। মাটিতে পড়ে যাওয়ার পর ইয়াসির বলছিলেন, আমি গুলিবিদ্ধ হয়েছি।’

এদিকে গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় আরও এক ফিলিস্তিনি নিহত হওয়ার কথা জানিয়েছে। নিহত এই ব্যক্তি ২০ বছর বয়সী হামজা আল আবদেল। তাঁকে মধ্য গাজার আল বুরেজিতে গুলি করা হয়েছিল।

Related posts

Leave a Comment