দুর্ঘটনা নিয়ে সচেতনতা সভায় যোগ দিতে গিয়ে…

সড়ক দুর্ঘটনা বন্ধে চলছিল সচেতনতামূলক সভা। সেখানে যোগ দেওয়ার জন্য রওনা হন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আনিছুর রহমান। পথিমধ্যে সড়ক দুর্ঘটনায় পড়েন তিনি। আহত হয়ে ভর্তি হন হাসপাতালে। তবে চিকিৎসকেরা বলছেন, তিনি এখন আশঙ্কা মুক্ত। ঘটনাটি ঘটেছে রংপুর-দিনাজপুর মহাসড়কের তারাগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কাছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, আজ বুধবার সড়ক দুর্ঘটনা বন্ধে সচেতনতামূলক এক সভার আয়োজন করা হয়। উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে স্থানীয় সরকার বিভাগ উপজেলা পরিষদের হল রুমে বেলা ১১টায় ওই সভা শুরু হয়। সভায় বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার প্রায় দেড় শ মানুষ অংশ নেন।
কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী জানান, ওই সভায় যোগ দেওয়ার জন্য উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আনিছুর রহমান তাঁর নিজ বাড়ি সরকারপাড়া গ্রাম থেকে বেলা ১১টা ২৫ মিনিটে জিপ গাড়িতে করে রওনা হন। মহাসড়কের ওই স্থানে প্রায় ১১টা ৩১ মিনিটে পৌঁছালে দিনাজপুরগামী একটি মিনিবাস পেছন থেকে চেয়ারম্যানকে বহনকারী জিপ গাড়িটিকে ধাক্কা দেয়। এতে গাড়িটি আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়। আহত হন চেয়ারম্যান। স্থানীয় লোকজন দ্রুত তাঁকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান। অবশ্য বিকেল চারটায় চিকিৎসকেরা আশঙ্কামুক্ত ঘোষণার পর তিনি হাসপাতাল ছাড়েন।
ইউএনও জিলুফা সুলতানা বলেন, সড়ক দুর্ঘটনা প্রতিরোধে নানা উদ্যোগ নিয়েছি। মহাসড়কের তারাগঞ্জের ১২ কিলোমিটার এলাকায় সচেতনতামূলক বিলবোর্ড লাগিয়েছি। দুর্ঘটনা প্রতিরোধে বিভিন্নভাবে এলাকাবাসীকে সচেতন করা হচ্ছে। গতকাল চালক, যাত্রীসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার দেড় শ মানুষ নিয়ে সড়ক দুর্ঘটনা বন্ধে সচেতনতামূলক সভার আয়োজন করা হয়। ওই সভায় যোগ দিতে আসার পথে চেয়ারম্যান আহত হন।

Related posts

Leave a Comment